১০ টাকা কেজির ৩২ বস্তা চালসহ ডিলারের স্ত্রী আটক

ময়মনসিংহ প্রতিনিধি।।
ময়মনসিংহের মুক্তাগাছায় পৃথক দু’টি ইউনিয়ন থেকে দুইদিনে হতদরিদ্রদের জন্য বরাদ্দকৃত খাদ্যবান্ধব কর্মসূচীর আওতায় ১০ টাকা কেজির ৩২ বস্তা চাল উদ্ধার করেছে ভ্রাম্যমান আদালত।

বুধবার (১৫ এপ্রিল) উপজেলার ৮নং দাওগাঁও ইউনিয়নের চন্দনীআটা ও মঙ্গলবার (১৪ এপ্রিল) রাতে ৩নং তারাটী ইউনিয়নের বিরাশি গ্রাম থেকে ভ্রাম্যমান আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) আবিদুর রহমানের নেতৃত্বে অভিযান চালিয়ে এ সব চাল উদ্ধার করা হয়। এ সময় তারাটী ইউনিয়নের ওএমএস চালের ডিলার শফিকুল ইসলাম বিপ্লবের স্ত্রী ফারজানা আক্তার বেলীকে আটক করা হয়েছে।

ভ্রাম্যমান আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) আবিদুর রহমান জানান, হতদরিদ্রদের জন্য বরাদ্দকৃত ১০ টাকা কেজি দরের চাল বন্ধের পরও বিরাশি গ্রামের ডিলার শফিকুল ইসলাম বিপ্লব তার বাড়ির রান্নাঘর, রান্নাঘরের পেছনের জঙ্গল ও ঘরের বিভিন্ন স্থানে ২১ বস্তা চাল লুকিয়ে রাখে।

পরে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে মঙ্গলবার(১৪ এপ্রিল) রাতে ওই বাড়িতে অভিযান চালিয়ে ২১ বস্তায় ২০ মণ চাল উদ্ধার করা হয়। এছাড়া উপজেলার দাওগাঁও ইউনিয়নের চন্দনীআটা গ্রামের বেগমের বাড়ি থেকে ১১ বস্তা চাল উদ্ধার করা হয়। উদ্ধারকৃত চাল সংশ্লিষ্ট এলাকার ডিলার গুলাশান মিয়ার।

ভ্রাম্যমান আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আবিদুর রহমান আরও জানান, মুক্তাগাছার বিভিন্ন এলাকায় হতদরিদ্রদের জন্য বরাদ্দ ১০ টাকা কেজির চাল ডিলাররা লুকিয়ে ফেলেছে। এ ধরণের খবরে বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালানো হচ্ছে। এর সঙ্গে জড়িত ডিলারদেরও খোঁজা হচ্ছে।

Scroll Up